ব্রেকিং নিউজ

সরিষাবাড়ীতে দুইবছরের শিশুকে বলাৎকার

ইসমাইল হোসেন, সরিষাবাড়ী(জামালপুর)প্রতিনিধিঃ জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে ২ বছরের এক শিশুকে বলাৎকার করেছে ষাটোর্ধ বৃদ্ধ। ঘটনাটি ঘটেছে সরিষাবাড়ী রেলওয়ে কলোনিস্থ এলাকায়। জানা গেছে, গত ২০ মে বুধবার দুপুর ১২ টার দিকে আবুল হোসেনর স্ত্রী আমেনা বেগম ত্রাণ ও ফেতরার টাকা সাহায্য চাইতে বাহিরে যান।

এমন সময় সুযোগ বুঝে উঠানে খেলতেরত পাশের ঘরের ওমর ফারুকের ২ বছরের ছেলে মোয়াজকে আদর করে ঘরে নিয়ে যান। কিন্তু মোয়াজের মা খেয়াল করেনি মোয়াজকে আবুল হোসেন কখন নিয়ে গেছে। সে তার প্রতিদিনের গৃহস্থালি কাজ করছিলেন এমন সময় পাশের ঘর হতে হঠাৎ শিশুর কান্না শুনতে পান এবং শিশুটি আকুতি ভরা কন্ঠে বলতে ছিলেন না না।

তখন তার কাছে মনে হয় এটা তার মোয়াজের কন্ঠ। তাই তিনি আবুলের ঘরের টিনের ফাঁক দিয়ে উকিঁ দিয়ে দেখেন ভিতরে আবুল হোসেন বিবস্ত্র এবং পাশে তার ছেলে মোয়াজ কাঁদছে।তখন তিনি চিৎকার দিয়ে ঘরের ঢুকে ছেলেকে উদ্ধার করেন এবং আশপাশের লোকজন এসে বলাৎকারী আবুল হোসেনকে ধরে ফেলেন। জানা গেছে, শিশুটিকে সরিষাবাড়ী হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে রের্ফাট করা হয়েছে। অপরদিকে বলাৎকারী আবুল হোসেনকে পুলিশে সোপর্দ করেছে বলে জানান এলাকাবাসী।

লম্পট আবুল হোসেন একজন ভিক্ষুক। তার পিতার নাম মৃত মুসলিম উদ্দিন। তার দেশের বাড়ী রংপুর। সে কাজীপুর থানা মনসুর নগর ইউনিয়নের চর গিরিশ গ্রামে প্রথম বিয়ে করেন এবং পরবর্তীতে দ্বিতীয় বিয়ে করেন তার খালাতো বোন আমেনাকে এবং তাকে নিয়েই দীর্ঘদিন যাবৎ সরিষাবাড়ী রেলওয়ে কলোনিতে বসবাস করে আসছেন। স্ত্রী আমেনা বেগম তার স্বামীর এই কুকর্মের উপযুক্ত বিচার চান বলে জানান।