ব্রেকিং নিউজ

সরিষাবাড়ীতে সাংবাদিকের উপর এক মাদক সেবীর অতর্কিত হামলা

ইসমাইল হোসেন ,সরিষাবাড়ি (জামালপুর) প্রতিনিধি ঃ জামালপুরের সরিষাবাড়িতে দৈনিক আজকের প্রভাতের প্রতিনিধি এস এম খুররম আজাদ কে অতর্কিত ভাবে হামলা করেছে এক মাদক সেবী।

জানা গেছে সরিষাবাড়ি পৌরসভার ২নং ওয়ার্ড়ের সামর্থ বাড়ী গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা জামাল উদ্দিন সরকারের অবাধ্য বর্বরোচিত সন্তান তথা মাদক সেবী জাকারিয়া হোসেন মুক্তি (৩৮) বিপ্লবের মোড়ে বেড়াতে আসে। এসে দেখে সাংবাদিক খুররম আজাদ একই এলাকার ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ বদিউজ্জামান উজ্জলের সাথে বসে চা খাচ্ছে এবং পরষ্পর কথাবার্তা বলছে। এই দেখে মাদক সেবী মুক্তি রুক্ষতাপূর্ণ ভাব নিয়ে খুররম আজাদকে বলে। তুই কেন চা খাচ্ছিস উজ্জলের সাথে।

তুই কি জানিস না ওর সাথে আমার ঝগড়া। এমন কথার পরিপ্রেক্ষিতে খুররম আজাদ বলেন। তোর সাথে কার ঝগড়া সেটা আমার দেখার বিষয় নয়। আমি সাংবাদিক সবার সাথেই মিশবো এবং কথা বলবো। তাতে তোর কি? এমন উক্তি করার সাথে সাথেই মুক্তি চুলার কাছ থেকে চলা নিয়ে এসে সাংবাদিক খুররম আজাদকে অতর্কিত ভাবে হামলা করে বলে জানা গেছে। প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ সূত্রে জানা যায়, সাংবাদিক খুররম আজাদ এবং মুক্তি মামাতো ফুফাতো ভাই। তাই মাতাল মাদকসেবী মুক্তির ধারণা।

আমি যার সাথে কথা বলি না। তার সাথে কেন আমার ফুফাতো ভাই কথা বলবে। এমন বিকৃত মনুষ্যত্বহীন অমানবিক ও অসামাজিক মানুষের সাথে আত্মীয়তা থাকতে পারেনা বলে জানান সাংবাদিক খুররম আজাদের স্ত্রী যুথি আক্তার। তিনি বলেন আমি একজন প্রাইমারী স্কুলের শিক্ষকা। আমার স্বামী তথা পরিবারবর্গ সর্বত্র আতঙ্কে থাকে এই সন্ত্রাসী মাদকসেবী মুক্তির তাণ্ডবে। আমি এর উপযুক্ত বিচার চাই। আপনারা আপনাদের সহকর্মীর সহমর্মিতা তুলে ধরেন মিডিয়াতে।

এই বলে আবেগআপ্লুত হয়ে পড়েন শিক্ষিকা যুথি আক্তার। তিনি আরও বলেন আমি সারাটি জীবন নির্যাতিত অপমানিত হয়েছি এই পরিবারটির কাছে। তবুও কিছু বলিনি। আজ নিরুপায় হয়ে বাধ্য হয়েছি আত্মীয়তার পরিচয় ছিন্ন করতে। যুথি আক্তার জানান তিনি আইনগত ব্যবস্থা নিবেন। তাই উক্ত বিষয়টি সম্পর্কে সরিষাবাড়ি থানা অফিসার ইনচার্জ মাজেদুর রহমানের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন ,এখনো কোন অভিযোগ পাওয়া যায়নি। পেলে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Leave a Reply