ব্রেকিং নিউজ

একটু বর্ষণেই জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয় সরিষাবাড়ী খাদ্য গুদামের সংরক্ষিত এলাকা

ইসমাইল হোসেন, সরিষাবাড়ী (জামালপুর) প্রতিনিধি, জনগণের কণ্ঠ : জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে গত ৩/৪ দিনে টানা প্রবল বর্ষণের ফলে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়েছে সরিষাবাড়ী খাদ্য গুদামের সংরক্ষিত এলাকা।

জানা যায়, উপজেলা সরিষাবাড়ী খাদ্য গুদাম এলাকাটি দীর্ঘদিন যাবৎ এমন সমস্যার সম্মুখক্ষীণে রয়েছে। তবুও এর কোন প্রতিকার নেই। উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের বারবার অবগত করার পরেও তারা অবহেলার দৃষ্টিতে দেখছে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের উপজেলা ভীত্তিক এই খাদ্য গুদামটিকে। উপজেলা সরিষাবাড়ীর জনগণের জন্য সরকারী বরাদ্দকৃত সকল প্রকার খাদ্য শস্য এখানে সংরক্ষিত করে রাখা হয়।

যাতে খাদ্যের স্বাদ, গন্ধ ও বর্ণ স্বাভাবিক থাকে। কিন্তু প্রবল বর্ষার কারণে যে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়েছে। তাতে গুদামে আর্দ্রতা নষ্ট হয়ে খাদ্যের স্বাদ, গন্ধ ও বর্ণ স্বাভাবিকতা হারাতে পারে বলে মনে করছেন, সরিষাবাড়ী খাদ্য গুদামের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মুহাম্মদ বাবুল মিয়া। তিনি আরো বলেন এখানে খাদ্য গুদামের সংখ্যা মোট ০৬টি, যার প্রতিটি গুদামে ধারন ক্ষমতা ৫০০ মে.টন। কিন্তু এখানে সর্বোচ্চ ৩ হাজার ৯শ মে.টন খাদ্য সংরক্ষিত করে রাখা যায় বলে জানান এই কর্মকর্তা।

বর্তমানে খাদ্য গুদামে সংরক্ষিত আছে ৩ হাজার ৭শ মে.টন চাল, ১শ ৫৭মে.টন গম এবং ১শ ৩৬ মে.টন ধান। যদি খাদ্য গুদামের চারপাশে এমন জলাবদ্ধতা দীর্ঘ দিন স্থায়ী থাকে তাহলে সংরক্ষিত খাদ্য ও শস্যের গুণোগত মান ক্ষুণ্ণ হতে পারে বলে মনে করছেন এই কর্মকর্তা। তাই এই জলাবদ্ধতা নিরসন তথা দূরীকরণে সরকার ও সংশিষ্ট কর্মকর্তারা যদি উদ্রগ্রীব না হোন। তাহলে অচিরের নষ্ট হয়ে যেতে পারে সংরক্ষিত করে রাখা কোটি কোটি টাকার খাদ্য শস্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*